করোনা ভাইরাস আতংকে পাটকেলঘাটায় ওয়ান টাইম গ্লাসের দাম বৃদ্ধি

মোঃ মামুন হোসেন  : গত ১৯ মার্চে তালা উপজেলার পোড়ার বাজার কমিটির সভাপতি মোঃ সাইদুল আলম বাবলু সাংবাদিক মোঃ মামুন হোসেনের পরামর্শ অনুযায়ী বাজারের প্রতিটি চায়ের দোকানদারকে ওয়ান টাইম গ্লাসে চা বিক্রির জন্য অনুরোধক্রমে নির্দেশ দেন এবং সেই রাতেই সাতক্ষীরার বহুল প্রচারিত দৈনিক পত্রদূত অনলাইনে ও পরের দিন (২০ মার্চ) প্রিন্টে সংবাদটি প্রকাশ পায়। সংবাদ প্রকাশের যেরে উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজারে অন-টাইম গ্লাসের প্রচলন ছিল আলচনা-সমালোচনার কেন্দ্র-বিন্দুতে।
বাজার কমিটির দেওয়া নির্দেষ মেনে প্রতিটি চায়ের দোকানে ওয়ান টাইম গ্লাসে চা বিক্রয় শুরু হয়। পত্রিকায় সংবাদ পড়ে করোনা ভাইরাস আতংকে নিত্য প্রয়োজনীয় খাদ্য দ্রব্যের সাথে সাথে মাত্র দু-এক দিনের ব্যবধানে অদৃশ্য কারনে পাটকেলঘাটার কিছু অসাধু ব্যবসায়ী দিগুন দাম বৃদ্ধি করেছে অন-টাইম গ্লাসের। ১শত পিচ গ্লাস এখন বিক্রি হচ্ছে ৭০-৮০ ও ১০০ টাকা করে।
উল্লেখ্য করোনা ভাইরাস থেকে সুরক্ষার জন্য পোড়ার বাজারের সকল চাঁয়ের দোকানে অন-টাইম গ্লাস ব্যবহারের অনুরোধ করা হয়। যার ফলে সকল চাঁয়ের দোকানে অন-টাইম গ্লাসে চা বিক্রয় করছে দোকানিরা। কিন্তু শনিবার থেকে হটাৎ করে এর দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় চায়ের দোকানিদের রীতিমতো বিব্রতকর পরিস্থিতির শিকার হতে হচ্ছে। পোড়ার বাজারের মামা-ভাগ্নে টি স্টোরের মালিক মোঃ মফিজুল আক্ষেপ করে বলেন, যে অন-টাইম গ্লাস দুদিন আগে ৩০-৪০ টাকায় ১০০ পিচ কেনা পড়ত হটাৎ করে তা দিগুন দাম দিয়ে কিনতে হচ্ছে আমাদের।
এ বিষয়ে বাজার কমিটির সভাপতি, ও সেক্রেটারি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, বিশ্বব্যাপী যখন সভায় করোনা ভাইরাস নিয়ে সঙ্কায় আছে। তখনই এক শ্রেণীর অসাধু ব্যক্তি আর্থিক ফায়দা লুটে নিজেদের আখের গোছাতে ব্যস্ত। এর থেকে মুক্তি পেতে প্রশাসনের পাশাপাশি জন-সাধারণের সচেতন থাকা অতি জরুরি। যার যার নিজ জায়গা থেকে এই অসাধু ব্যবসায়দেরকে প্রতিহত করতে হবে।
এসকল অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে চায়ের দোকান ব্যবসায়ীরা ওয়ান টাইম গ্লাসের দাম বেশি নেওয়ায় আইনের আওতায় আনার জন্য জেলা প্রশাসক মহাদ্বয়ের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

Comments

comments