সর্বশেষ সংবাদ

দুস্থ শীতার্তদের মাঝে গাইবান্ধার চিশতী পরিবারের ২ হাজার কম্বল বিতরণ

জিল্লুর রহমান পলাশ, গাইবান্ধা থেকে :
তীব্র শীতে বিপর্যস্ত গাইবান্ধার জনজীবন। অসহনীয় শীতে গরম কাপড়ের অভাবে চরম দুর্ভোগ পোহাচ্ছে হতদরিদ্ররা। এ অবস্থায় দুস্থ-অসহায় শীতার্ত দুই হাজার পরিবারের মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করেছে চিশতী পরিবার।

শুক্রবার (১০ জানুয়ারী) দুপুরে সদর উপজেলার বাদিয়াখালীর মরহুম ফকির ওসমান গণি চিশতী সাহেবের বাড়ি চত্তরে শীতবস্ত্র বিতরণের আয়োজন করা হয়।

‘দু:খি মানুষদের নিয়ে আমরা সবাই’ এই শ্লোগানে শীতবস্ত্র বিতরণের উদ্যোগ নেয় চিশতী পরিবার। বহু পুরনো সম্পদ-প্রভাবশালী ‘চিশতী পরিবার। বংশক্রমে পরিবারের মুক্তিযোদ্ধা, জনপ্রতিনিধি, চাকুরী, ব্যবসা-বাণিজ্যে, সমাজ সেবা ও সামাজিক কর্মকাণ্ডে অবদান ও জনপ্রীয় মরহুম ব্যক্তিদের পক্ষে এসব কম্বল বিতরণ করা হয়।

বাদিয়াখালি ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামের দুই হাজার গরীব, দুঃস্থ, অসহায় বৃদ্ধ নারী-পুরুষ, খেটে খাওয়া নিম্নআয়ের মানুষ, শিশু, এতিম ও বিধবা নারীদের হাতে চিশতী পরিবারের নবীন-প্রবীণ নারী-পুরুষরা সদস্যরা এসব কম্বল তুলে দেন।

কম্বল বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চিশতী পরিবারের সন্তান গ্যাকো ফার্মাসিটিকালের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার, গাইবান্ধা সদর উপজেলা আ.লীগের তথ্য-গবেষণা সম্পাদক সমাজ সেবক গোলাম মুক্তাদির মুক্তি। অতিথি ছিলেন, চিশতী পরিবারের গোলাম রব্বানি, গোলাম মোরশেদ তানশেন, গোলাম রহমান সুমন, টুকটকি বেগম, রনি ও রকি চিশতী। অন্যাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, এ্যাডভোকেট মঞ্জুরুল করিম সোহেল, ইউপি সদস্য শফিকুর রহমান, আওয়ামীলীগ নেতা শাহদাৎ হোসেন সেলিম, মতিয়ার রহমান ও জামিল মিয়া প্রমুখ।

চলমান শৈত্যপ্রবাহে ঘন কুয়াশা ও হাঁড়কাপানো শীতে দুর্ভোগের শিকার অসহায় মানুষরা কম্বল পেয়ে খুঁশি। কম্বল পেয়ে তীব্র শীতে কিছুটা কষ্ট লাঘবে চিশতী পরিবারের প্রতি দোয়া ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন অনেকে।

Comments

comments

Leave a Reply