1. rsumon83@gmail.com : Gobi Khobor : Mostofa Kamal
  2. omar1@gobikhobor.com : omar Faruk : omar Faruk
  3. ariful.bpi2012@gmail.com : Ariful Islam : Ariful Islam
  4. omar@gobikhobor.com : omar Faruk : omar Faruk
  5. rsaidul34@gmail.com : Saidul Islam : Saidul Islam
সাতক্ষীরার কলারোয়ায় গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যা - গোবি খবর
বৃহস্পতিবার, ২৮ মে ২০২০, ০৯:০৩ অপরাহ্ন
সর্বশেষ :

সাতক্ষীরার কলারোয়ায় গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যা

  • আপডেট করা হয়েছে : শুক্রবার, ২৯ মার্চ, ২০১৯
  • ১৭ বার পঠিত

মো. মামুন হোসেন, সাতক্ষীরা প্রতিনিধিঃ সাতক্ষীরার কলারোয়ায় সাবানা খাতুন (২৭) নামে এক গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। এঘটনার পর থেকে তার স্বামী রিপন হোসেন পলাতক রয়েছে। নিহত গৃহবধূ যশোরের শংকরপুরের সামটা গ্রামের ইসমাইল গাজীর মেয়ে।

ঘটনাটি ঘটেছে-শুক্রবার দিনগত রাত আড়াইটার দিকে উপজেলার রামভদ্রপুর গ্রামে। খবর পেয়ে কলারোয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জেল্লাল হোসেন সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনা স্থান পরিদর্শন করে নিহতের লাশ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করেছেন। এদিকে নিহতের ভাই আবুল কাশেম জানান-তার বোন সাবিনা খাতুনের সহিত কলারোয়া উপজেলার রামভদ্রপুর গ্রামের জিয়াদ আলীর ছেলে রিপন হোসেনের সাথে ১০/১২ বছর পূর্বে ইসলামিক সরিয়াত মোতাবেক বিয়ে হয়। এর পরে তারে কোটে এক ছেলে ও এক মেয়ে সন্তান জন্ম নেয়। কিন্তু প্রায় সময় স্বামী রিপন যৌতুক দাবী করে তার বোনকে মারপিট করে আসছে। গত ১৫দিন পূর্বে তার বোনকে যৌতুকের দাবীতে বেধড়ক মারপিট করে নিলা ফোলা জখম করে।
শুক্রবার রাতে কোন কারণ ছাড়াই তার বোনকে বাশের লাঠি ও গলা চেয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা করে। পরে এলাকাবাসী বিষয়টি জানতে পেরে তার বোনকে উদ্ধার করে স্থানীয় গয়ড়া ক্লিনিকে নিয়ে গেলে সেখানকার ডাক্তারা তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করার পরামশ্য দেন। ওই রাতে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে নেয়ার পথে সে মৃত্যু বরণ করে। কলারোয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মনিরুজ্জামান বলেন-নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সাতক্ষীরা মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।
পোস্টমটেম রিপোর্ট অনুযায়ী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। এ বিষয়ে কলারোয়া থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়ের হয়েছে।

Comments

comments

এই খবর সবার সাথে শেয়ার করুন

এই ধরনের আরও খবর

গোবিন্দগঞ্জ ও তৎসংলগ্ন এলাকার জন্য

সারাদেশের জন্য

© স্বত্ব গোবিখবর ২০১৩-২০২০

কারিগরি সহযোগিতায় Pigeon Soft