সর্বশেষ সংবাদ

জমে উঠেছে পলাশবাড়ী পিয়ারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচনী প্রচারণা

আরিফ উদ্দিন, স্টাফ রিপোর্টার, গাইবান্ধা থেকে: গাইবান্ধার পলাশবাড়ীর ঐতিহ্যবাহী একটি অন্যতম বিদ্যাপীঠ পিয়ারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়। পৌর শহরের জিরো পয়েন্ট চৌমাথা মোড় ঘেঁষে প্রতিষ্ঠানটির অবস্থান। সময় যতই ঘনিয়ে আসছে নির্বাচনের সার্বিক পরিবেশ ততই উৎসবমুখর হয়ে উঠছে।
উপজেলা সদরের চৌমাথা ঘেষে পলাশবাড়ী পিয়ারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়টি অবস্থিত। বিগত সময়ের যে কোন নির্বাচনের তুলনায় এবারের নির্বাচনের সার্বিক চিত্র দেখতে অনেকটা ঢিলেঢালা হলেও নীরব জমে উঠেছে। শেষ পর্যন্ত সমর্থন ধরে রাখতে নানা শ্রেনী ও পেশার ভোটারদের খুশি রাখতে দিনের ব্যবধানে চা-পর্বসহ নানা ফরমায়েশ পূরণে প্রার্থীরা ব্যস্ত উঠছেন। সময় যতই ঘনিয়ে আসছে প্রার্থী-ভোটাররা ততই তাদের ভোট প্রাপ্তির চুলচেঁরা হিসেব-নিকেশের পরিসংখ্যান পর্যালোচনায় মাতিয়ে উঠছেন। জমিয়ে এবং তাঁতিয়ে উঠেছে নির্বাচনের সর্বশেষ চালচিত্র। শেষ পর্যায় এসে ভোটারসহ সর্বস্তরের সচেতনসহ সবার দৃষ্টি এখন নির্বাচনে প্রার্থীদের শেষ ফলাফলের দিকে।

উল্লেখযোগ্য সংখ্যক বানিজ্যিক দোকানঘর নিয়ে রয়েছে পিয়ারী মার্কেট নামে একটি সুবিশাল সুপার মার্কেট। ভৌগোলিক দিক থেকে সম্পদশালী এবং আয়বর্ধক বিদ্যালয়টিতে শিক্ষার্থীদের সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে লেখাপড়াসহ ভবিষ্যত উন্নয়ন পরিকল্পনা সামনে রেখে শিক্ষার্থী অভিভাবকরা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় লিপ্ত হয়েছেন।

ম্যানেজিং কমিটির পৃথক ৪ সদস্য পদের বিপরীতে মোট ৬ জন প্রার্থী প্রতিদ্ব›িদ্বতা করছেন। আর মাত্র ৩ দিন। আগামী ২০ অক্টোবর প্রত্যাশিত নির্বাচন। বিদ্যালয়টির নিজস্ব ভবনের শ্রেনী কক্ষে এদিন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

যার-যার অবস্থান থেকে প্রার্থীরা তাদের নির্বাচনি প্রচার-প্রচারনা অব্যাহত চালিয়ে যাচ্ছেন। প্রতিদ্ব›িদ্ব ৬ প্রার্থীই স্ব-স্ব পদে বিজয় সুনিশ্চিত করতে তাদের বিশ্বস্ত ভোটার-সমর্থক ও সহোচরদের সাথে নিয়ে মোটরসাইকেলের বিশাল বহর হাঁকিয়ে অবিরাম ছুঁটে চলেছেন ভোটারদের দ্বারে দ্বারে।
উপজেলার ৮ ইউনিয়ন এলাকা ছাড়াও পৌর শহরের অলিগলি ও আনাচে-কানাচে বাসাবাড়ির ভোটারদের সমর্থন আদায়ে প্রার্থীরা মরিয়া হয়ে উঠেছেন।
বিদ্যালয়ের সার্বিক উন্নয়নে বিভিন্ন পরিকল্পনার প্রতিশ্রæতি বাস্তবায়নের কথা তুলে ধরে তারা ভোট প্রার্থনা করছেন। বিদ্যালয়টি নারী শিক্ষায় বরাবরই অগ্রণী ভূমিকা রেখে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় সমসাময়িক সময়ের সাথে আরো সুচারু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে শিক্ষার্থীদের মেধা বিকাশের লক্ষ্যে ২০ অক্টোবর কমিটির দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বচনে কমিশনােের দায়িত্বপালন করছেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মুহা. মাহতাব হোসেন। নির্বাচনে যারা প্রতিদ্ব›িদ্বতা করছেন যথাক্রমে তারা হলেন ১ নম্বর ব্যালট নিয়ে মো. আলমগীর মন্ডল, ২ নম্বরে মোঃ গোলাম মোস্তফা, ৩ নম্বরে মোঃ নওয়াব আলী নবাব, ৪ নম্বরে মোঃ মতিয়ার রহমান লাভলু, ৫ নম্বরে মোঃ সুরুজ হক লিটন ও ৬ নম্বরে হাবিবুর রহমান প্রমুখ। বিদ্যালয়টিতে ষষ্ঠ থেকে দশম সাধারণ এবং কারিগরি (ভোকঃ) শাখাসহ মোট ১ হাজার ৯ জন অভিভাবক সদস্য ভোটার তাদের ভোট প্রয়োগ করবেন বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়।

Comments

comments